মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

ভাষা ও সংস্কৃতি

 

সংস্কৃতি

জামালপুর জেলা সংস্কৃতিতে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রেখেছে। বৃহত্তর ময়মনসিংহ জেলার মধ্যে জামালপুর সংস্কৃতিতে বৃহত্তর ময়মনসিংহের প্রতিনিধিত্ব করত। জামালপুরের সিংহজানী, দেওয়ানগঞ্জ,সরিষাবাড়ী,মাদারগঞ্জ এবং নান্দিনাতে জমিদার আমলে নাটক থিয়েটার,গান বাজনা ও যাত্রার বিশেষ প্রচলন ছিল। জমিদার ও হিন্দু সম্প্রদায়ের সংস্কৃতিমনা ও বিত্তবানদের পৃষ্টপোষকতায় এসব কর্মকান্ড চলত। ফলে দেশের সংস্কৃতির অঙ্গণে আজও বহু গুণী শিল্পীর পদচারণা লক্ষ্য করা যায়। এখানে নাটকে আনোয়ার হোসেন,আমজাদ হোসেন, মরহুম আব্দুল্যাহ আল মামুন, মরহুম ওস্তাদ ফজলুল হক খান, মরহুম নজরুল ইসলাম বাবু, মরহুম এম এস হুদা, মরহুম গিয়াস উদ্দিন মাস্টার, শুশান্তকুমার দেব কানু ,মরহুম ফরিদ আফগানী, মহি উদ্দিন শ্রীপুরী, আবু জাহিদ লতা, ফজলুল করীম ভানু ,এ,কে, মাহবুব রেজা মতি, মোঃ ছানাউল হক সিদ্দিকী, এস,এম, মফিজুর রহমান, শর্বরী ও এ প্রজন্মের রাজীব,নোলক বাবু, শশী ও টুটুলসহ অসংখ্য গুণী শিল্পী রয়েছে।

 

ভাষা

দেশের অন্যান্য স্থানের মত জামালপুরেও বিভি ন্ন আঞ্চলিক ভাষা প্রচলিত আছে। জামালপুর জেলার একেক উপজেলার ভাষার উচ্চারণ একেক রকম। ফলে ভাষা শৈলী ও উচ্চারণগত পার্থক্য পরিলক্ষিত হয়। নমুনা হিসেবে জামালপুরের কয়েকটি আঞ্চলিক ভাষা উল্লেখ করা হলো ‘‘দেরী অব ক্যা, দন্ডেই বাজার থনে ঘুইরা আমু ‘’। ‘‘ইষ্টিরে বহাইয়া থও, বাত খায়ে যাব।’’ সাগাই নহুল খাছে ?